|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|

  জাতীয়
  ডিআইজি-র কাছ থেকে ঘুষ নেয়ার অভিযোগ মিথ্যা-ভিত্তিহীন : বাছির
  Publish Time : 11 June 2019, 6:14:5:PM

অনলাইন ডেস্ক : ডিআইজি মিজানুর রহমানের কাছ থেকে ঘুষ নেয়ার অভিযোগ মিথ্যা ও ভিত্তিহীন বলে দাবি করেছেন দুর্নীতি দমন কমিশন দুদকের পরিচালক খন্দকার এনামুল বাছির।

মঙ্গলবার (১১ জুন) দুপুরে দুদক কার্যালয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নে জবাবে এমন দাবি করেন তিনি। তবে তার এ বক্তব্যকে মিথ্যাচার বলে উল্লেখ করেছেন ডিআইজি মিজান। এদিকে দুদক কর্মকর্তাকে ঘুষ দেয়ার প্রমাণ মিললে ডিআইজি মিজানের ব্যবস্থা নেয়ার কথা জানিয়েছে পুলিশ সদর দপ্তর।

অবৈধ সম্পদ অর্জন, জোরপূর্বক বিয়ে ও ক্ষমতার অব্যবহারসহ নানা ঘটনায় আলোচিত পুলিশের ডিআইজি মিজানুর রহমান। বিতর্কিত এই পুলিশ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে দুদকের অনুসন্ধান যখন বছর পার হতে চললো তখন নতুন করে বিতর্কের জালে পড়লেন দুদকের তদন্তকারী কর্মকর্তা খন্দকার এনামুল বাছির।

ডিআইজি মিজানের কাছ থেকে ঘুষ নিয়ে তদন্ত ভিন্ন দিকে প্রবাহিত করার অভিযোগে সাময়িক বরখাস্ত হওয়ার পর মঙ্গলবার গণমাধ্যমের মুখোমুখি অভিযুক্ত দুদক কর্মকর্তা। তিনি দাবি করেন, প্রযুক্তির সহায়তায় অডিও বার্তা তৈরি করে তা প্রচার করেছেন ডিআইজি মিজান।

এনামুল বাছির বলেন, আমার বিরুদ্ধে সম্পূর্ণ বানোয়াট একটা অভিযোগ, আপনারা যা দিয়ে পারেন প্রমাণ করেন।

দুদক কর্মকর্তার বক্তব্যকে মিথ্যাচার উল্লেখ করে ডিআইজি মিজান বলেন, তিনি ঘুষ দিতে বাধ্য হয়েছেন। এক্ষেত্রে দুদকের কাছে সহযোগিতা চেয়েও পাননি তিনি।

তিনি বলেন, এনামুল বাছির নিজেকে বাঁচানোর জন্য মিথ্যাচার করছেন। আমি প্রমাণ করতে পারবো ঘুষ নেওয়ার অভিযোগ সত্যি।

ঘুষ দেয়ার ফৌজদারি অপরাধ প্রমাণ হলে ডিআইজি মিজানের বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নেয়ার কথা জানালো পুলিশ সদর দপ্তর। এআইজি সোহেল রানা বলেন, এই বিষয়টি পুলিশের দৃষ্টিতে এসেছে, এই বিষয়টি খতিয়ে দেখে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

দুদকের পক্ষ থেকে জানানো হয়, চাকরির বিধি লঙ্ঘনের অভিযোগ প্রমাণিত হলেও শুরু হবে দুদক কর্মকর্তার ঘুষ লেনদেনের অনুসন্ধান।



   শেয়ার করুন
Share Button
সংবাদটি পড়া হয়েছে মোট : 109        
   আপনার মতামত দিন

   © সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি